পলাতক দম্পতিদের জন্য ‘শেল্টার হোম’ তৈরির কথা ভাবছে ভারতের রাজস্থান পুলিশ।

পারিবারিক আপত্তি কিংবা অন্য কোনো কারণে যারা বাড়ি থেকে পালিয়ে বিয়ে করতে বাধ্য হচ্ছে, এবার তাদের পাশে এসে দাঁড়াবে পুলিশ। সম্প্রতি এমনটাই জানানো হয়েছে ভারতের রাজস্থান পুলিশ বিভাগের পক্ষ থেকে।

দেশটির সংবাদমাধ্যম জানিয়েছে, পারিবারিক আপত্তির কারণে বাড়ি থেকে পালিয়ে বিয়ে করতে হচ্ছে যে সব জুটিদের, তাদের পাশে এসে দাঁড়ানোর পরিকল্পনা নিয়েছে রাজস্থান সরকারের পুলিশ দফতর।

সংবাদমাধ্যমকে দেয়া এক সক্ষাৎকারে রাজস্থান পুলিশের অ্যাডিশনাল ডিরেক্টর জেনারেল অব পুলিশ জঙ্গা শ্রীনিবাস রাও জানান, পলাতক দম্পতিদের যাতে কোনো বিপদে পড়তে না হয়, সেই কারণেই এই ‘শেল্টার হোম’এর ভাবনা।

তিনি আরও জানান, রাজ্য পুলিশের সদর দফতর থেকে সব জেলার পুলিশ সদস্যদের জানানো হয়েছে, রাজ্যের যে কোনো প্রান্তে এমন সমস্যায় পড়া সদ্যবিবাহিতদের যেন সর্বাত্মক সহায়তা করা হয়।

রাজস্থান হাইকোর্টের নির্দেশ মোতাবেক পলাতক দম্পতিদের জীবনের সুরক্ষা দেয়া পুলিশের একান্ত কর্তব্য উল্লেখ করে পুলিশ কর্মকর্তা শ্রীনিবাস রাও আরও বলেন, ‘পলাতকদের সাহায্যের জন্য রাজ্যের সব পুলিশ রেঞ্জ ও জেলায় সিনিয়র স্তরের মহিলা পুলিশ অফিসার রাখা হবে’।

প্রসঙ্গত, পালিয়ে বিয়ে করা যুগলদের জন্য এই শেল্টার হোম সহ আরও অন্যান্য পদক্ষেপ সেই রাজ্যে ক্রমবর্ধমান ‘অনার কিলিং’ (তথাকথিত সম্মান রক্ষার্থে হত্যা) বন্ধ করার সহায়ক হবে বলেই ধারণা রাজস্থান পুলিশের।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here